বুধবার   ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ৬ ১৪২৬   ২৩ জমাদিউস সানি ১৪৪১

চট্টলার বার্তা
৩৫

শান্তিচুক্তি বাস্তবায়নে ভারতের হস্তক্ষেপ কামনা করছেন সন্তু লারমা

ডেস্ক রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

শান্তিচুক্তি পূর্ণাঙ্গ বাস্তবায়নে ভারতের হস্তক্ষেপ কামনা করছেন পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির (পিসিজেএসএস) প্রধান জ্যোতিরিন্দ্র ব্যোধিপ্রিয় লারমা ওরফে সন্তু লারমা। শ্রীলংকায় তামিলদের অধিক স্বায়ত্ত্বশাসন অর্জনে মোদী সরকার যে রকম ভূমিকা রেখেছেন, পার্বত্য চট্টগ্রামেও তিনি একই ভূমিকা প্রত্যাশা করছেন ভারতে। বর্তমানে তিনি ভারতে অবস্থান করছেন।

চিকিৎসার উদ্দেশ্যে আগত এই সফরের আড়ালে কঠোর গোপনীয়তার সাথে তিনি এ বিষয়ে ভারতীয় দুইজন সিনিয়র মন্ত্রীর সাথে বৈঠকের চেষ্টা করছেন বলে নর্থইস্ট নাও নামে ভারতীয় একটি গণমাধ্যমে এ রিপোর্ট প্রকাশিত হয়েছে।

‌‌‘Bangladesh: Push for Chittagong Hill Tracts Accord’ শিরোনামে ১২ ফেব্রুয়ারি প্রকাশিত রিপোর্টে বলা হয়েছে, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি “তামিলদের অধিক স্বায়ত্তশাসনের জন্য দেশটির প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নের জন্য যেভাবে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা গ্রহণ করেছে, সেভাবে লারমা নয়া দিল্লিকে স্মরণ করিয়ে দিতে চাইছেন যে, ভারতেরও উচিত পার্বত্য চট্টগ্রামে একই ভূমিকা পালন করা।”

সন্তু লারমার ঘনিষ্ঠ সূত্র ওই গণমাধ্যমকে জানিয়েছে, শান্তিচুক্তি পূর্ণাঙ্গ বাস্তবায়নে ‘ভারতের ‌সুস্পষ্ট নিশ্চিয়তার’ ভিত্তিতেই সন্তু লারমার সশস্ত্র শাখা শান্তি বাহিনী ১৯৯৭ সালে শেখ হাসিনার সাথে শান্তিচুক্তি করে অস্ত্র সমর্পন করে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসে।

পার্বত্য চট্টগ্রামের উপজাতিদের নিয়ে বাংলাদেশে একটি বৃহত্তর সংখ্যালঘু ফ্রন্ট খুলতে বিজেপির সমর্থনও কামনা করছেন সন্তু লারমা।

বিনিময়ে ২০২১ সালে পশ্চিমবঙ্গের বিধান সভা নির্বাচনে প্রভাব বিস্তারের জন্য পশ্চিমবঙ্গে একটি জঙ্গী উপজাতীয় ফ্রন্ট খোলার জন্য তিনি গেরুয়া শিবিরকে অনুরোধ জানিয়েছেন।

চট্টলার বার্তা
চট্টলার বার্তা
এই বিভাগের আরো খবর